দেশে ঊর্ধ্বমুখী সংক্রমণ, এক লাফে বাড়লো 12 শতাংশ, জারি সতর্কবার্তা

0
110
daily Covid numbers jumped

দেশে ঊর্ধ্বমুখী সংক্রমণ, এক লাফে বাড়লো 12 শতাংশ, জারি সতর্কবার্তা

পরিসংখ্যানের নিরিখে করোনা সংক্রমণ গত কয়েকদিনের প্রবণতাকে পিছনে ফেলে গত ২৪ ঘন্টায় এক লাফে বাড়লো ১২ শতাংশ। স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুসারে, বুধবার সারাদেশে ৪৭০৯২ জনের নতুন করে সংক্রমণে খবর পাওয়া গেছে। যা গত দুই মাসের তুলনায় একদিনে সবচেয়ে বেশি বৃদ্ধি। গত ২৪ ঘন্টায় মারা গিয়েছেন ৫০৯ জন।

এদিকে সংক্রমণের নিরিখে রাজ্যগুলোর মধ্যে এখনও দেশের মধ্যে এগিয়ে কেরালা। তৃতীয় ঢেউয়ের মুখে দক্ষিণী এই রাজ্যে সংক্রমণের উর্ধ্বগতি চিন্তা বাড়াচ্ছে দেশবাসীর। গত ২৪ ঘন্টায় এ রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা ৩২ হাজার ৮০৩ জন। মৃত ১৭৩। পজিটিভিটি রেট ১৮.৭৬। রাজ্যে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বুধবার জানান, ৩২ জন শিক্ষার্থী তারা সবাই কর্নাটকের একটি কলেজ থেকে ফিরে আসার পর স্বাস্থ্য পরীক্ষায় সকলের পজেটিভ ধরা পড়েছে।

মহারাষ্ট্রে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৪৪৫৬ বেড়ে মোট ৬৪৬৯৩৩২ এ পৌঁছেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৮৩ জনের ভাইরাস সংক্রমিত হয়ে মৃত্যু হয়েছে।

গুজরাটে ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণীর স্কুল গুলি আজ ৫০ শতাংশ ছাত্র-ছাত্রী নিয়ে পুনরায় খোলা হয়েছে। স্কুলে পাশাপাশি অনলাইন পাঠের ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে।

কোভিড সংক্রমণে তুলনায় দিল্লির অবস্থা তুলনামূলক ভালো। সংক্রমণে দিক থেকে এখন তিন নম্বর পজিশনে ধরে রেখেছে তারা। শহরে সক্রিয় মামলা এখন ০.২৩ শতাংশে দাঁড়িয়েছে। যা মহামারী শুরু পর থেকে এখনো পর্যন্ত সর্বনিম্ন।দেশে এখন পর্যন্ত কোভিদ -১ ভ্যাকসিনের ডোজ ৬৬ কোটি ছাড়িয়ে গেছে।

নতুন চিন্তার বিষয় হলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা “মু” নামে পরিচিত একটি নতুন করোনাভাইরাস রূপ পর্যবেক্ষণ করছে, যা জানুয়ারিতে কলম্বিয়ায় প্রথম চিহ্নিত হয়েছিল। বৈজ্ঞানিকভাবে B.1.621 নামে পরিচিত মুকে “আগ্রহের বৈকল্পিক” হিসাবে শ্রেণীবদ্ধ করা হয়েছে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা মঙ্গলবার তার সাপ্তাহিক মহামারী বুলেটিনে একথা জানিয়েছে।

মুম্বাইয়ের নাগরিক সংস্থা বৃহন্মুম্বাই মিউনিসিপ্যাল ​​কর্পোরেশন (বিএমসি) করোনাভাইরাসের নতুন স্ট্রেন আবিষ্কারের পর September সেপ্টেম্বর থেকে বিমানবন্দরে আগত আন্তর্জাতিক যাত্রীদের জন্য নিজ খরচায় আরটি -পিসিআর পরীক্ষা বাধ্যতামূলক করেছে।

ইউরোপ, মধ্যপ্রাচ্য, দক্ষিণ আফ্রিকা, ব্রাজিল, বাংলাদেশ, বতসোয়ানা, চীন, মরিশাস, নিউজিল্যান্ড, জিম্বাবুয়ে থেকে মুম্বাই বিমানবন্দরে আগত আন্তর্জাতিক যাত্রীদের উপর এই পরীক্ষার বিশেষ জোর দেয়া হচ্ছে। যাতে করে করোনার নতুন এই ভেরিয়েন্ট ভারতে ছড়িয়ে না পড়ে সেই লক্ষ্যেই এই বিশেষ সতর্কতা নেয়া হয়েছে বিমানবন্দরে।